এবি একবার ক্ষেপে গেলে তাকে থামানো অসম্ভব

ক্রিকেট খেলাধুলা

ক্রিকেট বিশ্বে সুপারম্যান একজনই হয়। আর সে অবশ্যই এবি ডি’ভিলিয়ার্স। ৩৯ বলে অপরাজিত ৯০। বিরাট কোহলির মুখে হাসি ফোটানোর জন্য এমন ইনিংসই দররকার ছিল এবিডি’র। শনিবার দিল্লি ডেয়ার ডেভিলসের বিপক্ষে করে দেখিয়েছেন প্রোটিয়ার সুপারস্টার।

অধিনায়ক বিরাট কোহলি ছাড়া এবি’র সঙ্গে সরফরাজের উপর ভরসা করেছিল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার বেঙ্গালোর। কিন্তু ভরসা করলেই তো হবে না, কিছু করে দেখাতে হবে।

ক্রিকেট বিশ্ব জানে যেদিন ডি’ভিলিয়ার্স খেলেন, সেদিন কোহলি কেন পুরো বিশ্ব স্তব্ধ হয়ে দেখে। এমনি এমনি তো আর তাকে ৩৬০ ডিগ্রি ক্রিকেটার বলে না।

আরসিবি যখন চাপে তখন একা হাতে ৩৯ বলে ৯০ রান করে দলকে জিতিয়ে দেন এবি। তার ইনিংসে মাত্র ৫টি ডট বল ছিল। ১৭৫ তাড়া করতে নেমে দল জেতে ৬ উইকেটে।

ম্যাচ শেষে দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি বলেন, ‘এমনি এমনি কেউ বিশ্বসেরা হয় না। এবি এই রকম খেললে বুঝতে পারবেন আমি ছাড়াও দলে হাসি ফোটানোর অন্য লোক আছে। অভিনন্দন এবিকে। এই ইনিংস তার পক্ষেই খেলা সম্ভব। সে বিশ্বসেরা।’

পরে টেলিভিশনের ম্যাচ অ্যানালিসিস পর্বে এবির ইনিংস নিয়ে কথা বলেন অস্ট্রেলিয়ার সাবেক পেসার শন টেইট এবং জেমস ফকনার। সেখানে ফকনারের মন্তব্য ছিল, ‘এবি একবার ক্ষেপে খেলে তাকে থামানো অসম্ভব। চেষ্টা করাটাও বৃথা।’