ওয়ানডেতে দ্রুততম দশটি সেঞ্চুরীর তালিকা

ক্রিকেট খেলাধুলা

জুবায়ের আহমেদ: টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাস দীর্ঘদিনের। ১৯৭০ সালের পর ক্রিকেটের প্রতি দর্শকদের আরো আকর্ষণ বৃদ্ধি করতে একদিনের ক্রিকেটের আয়োজন করা হয় এবং ১৯৭৫ সালে প্রথমবারের মতো ওয়ানডে বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত। চ্যাম্পিয়ন হয় ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

তখন থেকে ধীরে ধীরে ওয়ানডে ক্রিকেটই দর্শকদের নিকট সবচেয়ে বেশি আকর্ষণে রূপ নেয়। ২০০৫ সালে টি২০ এর আবির্ভারের পরও অদ্যাবধি পর্যন্ত ওয়ানডে ক্রিকেটের আকর্ষণ একবিন্দুও কমেনি, বরং টি২০ ক্রিকেটের মতো ওয়ানডেতেও এখন প্রচুর রান হওয়ার কারনে পূর্বের চেয়েও বেশি জনপ্রিয় এখন ওয়ানডে ক্রিকেট।

ওয়ানডে ক্রিকেটে দ্রুততম সেঞ্চুরী করেছেন, এমন দশজন ক্রিকেটার ও দশটি ইনিংস নিয়েই এই লেখা।

১। এবিডি ভিলিয়ার্স। ২০১৫ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাথে মাত্র ৩১ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন।

২। কোরি এন্ডারসন। ২০১৪ ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাথে মাত্র ৩৬ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন।

৩। শহিদ আফ্রিদি। ১৯৯৬ সালে শ্রীলংকার সাথে মাত্র ৩৭ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন।

৪। মার্ক বাউচার। ২০০৬ সালে জিম্বাবুয়ের সাথে মাত্র ৪৪ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন।

৫। ব্রায়ার্ন লারা। ১৯৯৯ সালে বাংলাদেশের সাথে মাত্র ৪৫ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন।

৬। শহিদ আফ্রিদি। ২০০৫ সালে ভারতের সাথে মাত্র ৪৫ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন।

৭। জেসি রাইডার। ২০১৪ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাথে মাত্র ৪৬ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন।

৮। জস বাটলার। ২০১৫ সালে পাকিস্তানের সাথে মাত্র ৪৬ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন।

৯। সনাথ জয়সুরিয়া। ১৯৯৬ সালে পাকিস্তানের সাথে মাত্র ৪৮ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন।

১০। কেভিন ও’ব্রায়েন। ২০১১ সালে ইংল্যান্ডের সাথে মাত্র ৫০ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন।

এছাড়াও ম্যাক্সওয়েল ৫১ বলে, বিরাট কোহলী ৫২ বলে, ভিলিয়ার্স ৫২ বলে, আফ্রিদি ৫৩ বলে, মঈন আলী ৫৩ বলে, জয়সুরিয়া ৫৫ বলে, ফকনার ৫৭ বলে, ভিলিয়ার্স ৫৭ ও ৫৮ বলে ২টি, সেবাগ ৬০ বলে, কোহলী ৬১ বলে, বাটলার ৬১ বলে, সারজিল খান ৬১ বলে, আজাহার উদ্দিন ৬২ বলে, সাকিব আল হাসান ৬৩ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন।

বাংলাদেশী ব্যাটসম্যানের মধ্যে সাকিব আল হাসানই ৬৩ ও ৬৮ বলে দুইটি দ্রুততম সেঞ্চুরী করেন। এছাড়া ২০০৫ সালে মোহাম্মদ আশরাফুল ইংল্যান্ডের সাথে ৫২ বলে ৯৪ রানের ইনিংস খেললেও সেঞ্চুরী পূর্ণ করতে পারেননি। বাংলাদেশের ওয়ানডে ক্রিকেটের ইতিহাসে ৫২ বলে ৯৪ রানের ইনিংসই সবচেয়ে কম বলে বেশি রানের ইনিংস।

১৯৯৬ সালে আফ্রিদির গড়া ৩৭ বলে সেঞ্চুরীর রেকর্ডটি টিকে ছিল দীর্ঘ ১৯ বছর। ২০১৪ সালে অখ্যাত কোরি এন্ডারসন আফ্রিদির রেকর্ড ভেঙ্গে দেন মাত্র ৩৬ বলে সেঞ্চুরী করে। তার পরের বছরই ডি ভিলিয়ার্স মাত্র ৩১ বলে সেঞ্চুরী পূর্ণ করেন, যা বর্তমান অবধি দ্রুততম সেঞ্চুরীর তালিকায় এক নাম্বারে আছে।