ক্রিকেটকে বিদায় জানালেন ইংল্যান্ডের কোহলি

ক্রিকেট খেলাধুলা

ইংল্যান্ড ক্রিকেট ইতিহাসের অন্যতম সেরা টেকনিকালি সলিড ব্যাটসম্যান তিনি।যতদিন জাতীয় দলে খেলেছেন বীর দর্পে ব্যঅট চালিয়েছেন। বিশ্বের বাঘা বাঘা বোলারদের কজ্বির জোরে সীমানা ছাড়া করেছেন। ছিলেন খুবই ধারাবাহিক। ২০১১ বিশ্বকাপে সেরা ব্যাটসম্যানদের তালিকায় ছিলেন। ২০১১-২০১৩ এই তিন বছর ক্রিকেট বিশ্বের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান ছিলেন। ইন্ডিয়ার যেমন কোহলি ছিলো ইংল্যান্ডেরও একজন ছিলেন, তিনি জনাথন ট্রট। স্পিনারদের বিরুদ্ধে ছিলেন দূর্দান্ত।

কিন্তু ইনজুরি বাঁধায় আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ক্যারিয়ারটা খুব বেশি লম্বা করতে পারেনি। একটা সময় নিরবেই জাতীয় দলের বাইরে চলে যান।অবশেষে ৩৭ বছর বয়সী ট্রট সব ধরনের ক্রিকেটকে বিদায় জানাতে যাচ্ছেন। তিন বার অ্যাশেজ জয়ী দলের সদস্য জনাথন ট্রট ২০০২ সালে ওয়ারউইকশায়ারে যোগ দেন। ২০০৩ সালে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে অভিষেকেই সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছিলেন এই ব্যাটসম্যান।

তার ব্যাটে ভর করেই ইংল্যান্ড সেই সময় অ্যাশেজ জিতে।২০১৩ সালে আইসিসি ক্রিকেটার অফ দ্য ইয়ারের জন্য গারফিল্ড সোবার্স ট্রফি জয় করেন ট্রট।চলতি কাউন্টি মৌসুম শেষেই ক্রিকেটকে গুড বাই জানিয়ে দিবেন ট্রট। বৃহস্পতিবার বিকেলে তার কাউন্টি দল ওয়ারউইকশায়ার নিশ্চিত করেছে খবরটি।

ওয়ারউইকশায়ারের স্পোর্ট ডিরেক্টর এবং সাবেক ইংল্যান্ড স্পিনার অ্যাশলে জাইলস ট্রটকে বিদায়ী শ্রদ্ধা জানিয়ে বলেছেন, ‘২১ শতকে ইংল্যান্ড এবং ওয়ারউইকশায়ারের হয়ে খেলা গ্রেটেস্ট ব্যাটসম্যানদের মধ্যে থাকবেন ট্রটি। তার মাঠ এবং মাঠের বাইরের অসামান্য অবদানের বিষয়গুলো আমরা মিস করব। তবে তার সিদ্ধান্তকে আমরা স্বাগত জানাই।’

ইংল্যান্ডের হয়ে ৫২ টেস্টে ৯ সেঞ্চুরি ও ১৯ ফিফটিতে ৪৪ গড়ে ৩৮৩৫ রান করেন ট্রট। ৬৮টি একদিনের ম্যাচে ৪ সেঞ্চুরি ও ২২ ফিফটিতে ৫১.২৫ গড়ে ২৮১৯ রান করেন ইংলিশ এই ব্যাটসম্যান।