জলে-জঙ্গলে সাকিবপত্নী শিশির! (ভিডিও)

ক্রিকেট খেলাধুলা বিনোদন

অপার মুগ্ধতা নিয়ে জলে-জঙ্গলে ঘুরে বেড়াচ্ছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানের স্ত্রী উম্মে আহমেদ শিশির। অথচ তার সঙ্গে নেই সাকিব! যেমনটা সচরাচর দেখা যায় না তাকে, মাঠে-পার্টিতে কিংবা বিজ্ঞাপনে।

খবর মিলেছে, শিশির মডেল হয়েছেন নতুন একটি বিজ্ঞাপনচিত্রে। আর সেখানেই দেখে গেছে জলে-জঙ্গলে সাকিবহীন শিশিরের একা পথচলা এবং মুগ্ধ চাহনি।
কুমারিকা সাবানের বিজ্ঞাপনচিত্রটি নির্মাণ করেছেন আদনান আল রাজীব। তিনি বাংলা ট্রিবিউনকে বললেন, ‘মানুষ হিসেবে শিশির খুবই ভালো। এর আগে আমার নির্দেশনায় বাংলালিংকের দুটি কাজ করেছেন তিনি। দুটিতেই তার সঙ্গে ছিলেন সাকিব আল হাসান। একটি প্রচারে এসেছে। অন্যটি সামনে আসবে। তবে এবার যেটি করেছি সেটিতে শিশির একাই মডেল হলেন। খুব ভালো কাজ হয়েছে।’
জানা যায়, শুটিংয়ে গল্পের প্রয়োজনে জঙ্গলে হাঁটার সময়  খুব টেনশনে ছিলেন শিশির। জঙ্গলে জোঁক থাকবে কিনা তা নিয়ে ভয় হচ্ছিল তার। এছাড়া মশা নিয়েও ভীতি ছিল সাকিবপত্নীর। তবে ক্যামেরা চালু হতেই ঠিকই যুতসই অভিব্যক্তি দিতে পেরেছেন তিনি।
তার পরা পোশাক পরিকল্পনা করেছেন নিশাত শারমিন নিশি।
নির্মাতা রাজীব বাংলা ট্রিবিউনকে বললেন, ‘শিশির খুব বিচক্ষণ মানুষ। কখন কিভাবে কোন অভিব্যক্তি দিতে হবে তা জানেন। তাকে নিয়ে কাজটা করতে আমার খুব বেশি বেগ পেতে হয়নি। কারণ যা বলেছি তা করে দেখাতে বেশি সময় লাগেনি তার। তাছাড়া তার মুখটা দেখতে খুব সরল লাগে। ক্যামেরার সামনে এটা অনেক সহায়ক।’
বিজ্ঞাপনচিত্রটির শুটিং হয়েছে গাজীপুরে। নির্মাতা জানালেন, বৃষ্টির কারণে একবার শুট করতে গাজীপুর গিয়েও ফিরে আসতে হয়েছে তাদের। এরপর আবার যেদিন গিয়েছেন ওইদিনও বৃষ্টির কারণে দুপুর পর্যন্ত বসে থাকতে হয়েছিল। এর পরদিন ভিএফএক্স পরিকল্পনা করে সেট বানানো হয় একটি রিসোর্টের সুইমিং পুলে।
ভিএফএক্স-এর দায়িত্বে ছিল আফটার স্টুডিও, সিজি করেছে স্কেচ প্রোডাকশন। পুরো পোস্ট প্রোডাকশন করা হয়েছে ভারতে। বিজ্ঞাপনটির এজেন্সি গ্রে। আর প্রধান ক্রিয়েটিভ অফিসার ছিলেন গাউসুল আলম শাওন।
এ বিজ্ঞাপনে ব্যবহৃত নেপথ্য গানটি মিকু প্যাটেলের সুরে  গেয়েছেন রোশনি সাহা। চিত্রগ্রহণে নেহাল কোরাইশি, শিল্প নির্দেশনায় ছিলেন রিফাত আল হাসান রাজু।
শুক্রবার (২৪ নভেম্বর) অনলাইনে ছাড়া হয়েছে ৫০ সেকেন্ডের বিজ্ঞাপনটি। এদিন থেকেই টিভিতেও প্রচারের কথা রয়েছে।