তুই এতোবার মাফ চাস, এটা আমার ভালো লাগে না

ঢালিউড বিনোদন

একটি বেসরকারি স্যাটেলাইট চ্যানেলের অনুষ্ঠানে সম্প্রতি খল অভিনেতা মিশা সওদাগরকে অনুষ্ঠানের সঞ্চালক চিত্রনায়িকা পূর্ণিমা `ধর্ষণ দৃশ্য` নিয়ে প্রশ্ন করেন। পূর্ণিমার ওই প্রশ্নে মিশা যে জবাব দেন তা নিয়ে তোলপাড় শুরু হয় মিডিয়া পাড়ায়। পূর্ণিমার প্রশ্নের জবাবে মিশা জানান, নায়িকাদের মধ্যে পূর্ণিমা ও মৌসুমীর সঙ্গে ধর্ষণ দৃশ্যে অভিনয় করতে তিনি এনজয় করতেন। ধর্ষণ নিয়ে দুই জনপ্রিয় শিল্পীর খোলামেলা আলোচনায় ঝড় বইয়ে চলছে বিনোদনপ্রেমিদের মধ্যে।

পরিপ্রেক্ষিতে ফেসবুক লাইভে এসে মৌসুমীর স্বামী চিত্রনায়ক ওমর সানী এক প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন। এতে তিনি বলেছেন, পূর্ণিমার কাছ থেকে ধর্ষণ নিয়ে এমন কথোপকথন তিনি আশা করেননি।

মিশার সম্পর্কে ওমর সানী বলেন, ‘মিশা আমার বেস্ট ফ্রেন্ড। শিল্পী সমিতির প্রেসিডেন্ট। আমার অসুস্থতার সময় সে বেশ ক`বার দেখতে এসেছে। এজন্য কৃতজ্ঞতা। মিশাকে উদ্দেশ করে ওমর সানী বলেন, তুই একজন শিক্ষিত মানুষ। তুই এতোবার মানুষের কাছে মাফ চাস, এটা আমার ভালো লাগে না, বেস্ট ফ্রেন্ড বলেই ভালো লাগে না।’

মৌসুমীর স্বামী ওমর সানী মিশাকে উদ্দেশ্য করে বলেন, ‘তুই বলিস, মৌসুমী আমার গুড ফ্রেন্ড; সানী আমার গুড ফ্রেন্ড। তার জন্য মৌসুমী বলেছে এইভাবে ধর্ষণ কর, এইটা কোন ধরনের উত্তর দেওয়া? আমি জানি তুই কোনো ইনটেনশন থেকে উত্তর দিসনি। তবে উত্তর দেওয়ার স্টাইলটা আরও বেটার হওয়া দরকার ছিল।’

বেসরকারি ওই চ্যানেলের অনুষ্ঠান নির্মাণ নিয়েও প্রশ্ন তোলেন ওমর সানী। বলেন, আমি পেছনের মানুষগুলোর দিকে দৃষ্টিপাত দিই। টেলিভিশন চ্যানেলগুলো আমাদের জীবনের অংশ। সঞ্চালক আমাদের নানা কিছু বলতে পারে তাই বলে আমাদের সেটা বলে দিতে হবে? আমাদের বিবেকবোধ আছে। সেটা দিয়ে বিবেচনা করতে হবে।

ওমর সানী বলেন, এমনি চলচ্চিত্রের নাক ছিটকানো অবস্থা, এর সংসার টিকে না, ওর ধর্ষণ। তার মধ্যে এমন প্রশ্ন। আমি বলি আপনারা বিবেককে খাটান। বারবার আমি একটা কথা বলেছি, এটা ইউরোপ না, ল্যাটিন আমেরিকা না, অস্ট্রেলিয়া না। যেখানে ৯৫ ভাগ মুসলিম সেখানে আমাদের ব্যালান্স করে কথা বলতে হবে। এখানে আমরা হিন্দু মুসলিম, বৌদ্ধ খ্রিস্টান সবাইকে মিলেমিশে বসবাস করতে হবে।