বন্ধ হতে পারে অর্ধ-কোটি সিম!

বন্ধ হয়ে যেতে পারে অর্ধকোটি নিবন্ধিত সিম। একটি জাতীয় পরিচয়পত্রের বিপরীতে নির্ধারিত সংখ্যার চেয়ে বেশি নিবন্ধিত হওয়ায় ওই সিমগুলো বন্ধ করার উদ্যোগ নিয়েছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)। সূত্র মতে, কয়েক লাখ জাতীয় পরিচয়পত্রের অধীনে ১৫টির বেশি সিম নিবন্ধন হওয়া এই সিমগুলো সহসাই বন্ধ করে দেয়া হবে। তবে কবে থেকে সিম বন্ধের প্রক্রিয়া শুরু হবে সে সম্পর্কে কিছু জানা যায়নি।

জানা গেছে, গত ২৮ ফেব্রুয়ারি ছিল গ্রাহকের নামে থাকা অতিরিক্ত সিম নিষ্ক্রিয় করার শেষ দিন। কিন্তু ওই দিন পর্যন্ত অতিরিক্ত সিম প্রত্যাহারে তেমন সাড়া পায়নি নিয়ন্ত্রক সংস্থা। বরং সংস্থাটি প্রায় ৫০ লাখ সিমের সন্ধান পেয়েছে যেটি অতিরিক্তের খাতায় চলে যাবে।

এর আগে প্রিপেইড, পোস্টপেইড মিলে একটি জাতীয় পরিচয়ত্রের বিপরীতে সর্বোচ্চ ১৫টি সিম নিবন্ধন করা সিদ্ধান্ত অপারেটরদেরকে জানানোর পাশাপাশি বিজ্ঞপ্তি দিয়ে গ্রাহকদেরও বিষয়টি অবহিত করেছিল বিটিআরসি।

বিজ্ঞপ্তিতে তখন বলা হয়, ‘১৫টির বেশি নিবন্ধন করা সিম অবৈধ বলে ধরা হবে। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে এই অতিরিক্ত সিম নিষ্ক্রিয় না করা হলে অপারেটরের মাধ্যমে বিটিআরসি নিজেই তা বন্ধ করে দেবে। এক্ষেত্রে গ্রাহকের যেকোনো সিম বন্ধ হয়ে যেতে পারে।’

প্রসঙ্গত, জাতীয় পরিচয়পত্রের বিপরীতে কয়টি সিমের নিবন্ধন হয়েছে সেটি জানতে *১৬০০১# ডায়াল করলে ফিরতি এসএমএসের এনআইডির নম্বরের শেষ চার ডিজিট লিখে দিলেই জানতে পেয়ে যাবেন যে তার নামে কয়টি সিমের নিবন্ধন আছে।

Comments

comments

Leave A Reply

Your email address will not be published.