বলিউড নায়িকাদের সম্পদের পরিমাণ

বলিউড বিনোদন

সৌন্দর্য, ফ্যাশন, স্টাইল স্টেটমেন্ট, অভিনয় সবেতেই একে অপরকে টেক্কা দেন বলিউড নায়িকারা। কিন্তু শুধুই কী তাই? মুম্বইয়ের বেশ কিছু এন্টারটেইনমেন্ট ওয়েবসাইটের তথ্যের ভিত্তিতে বলিউড-পাড়ার ধনীতম নায়িকাদের তথ্য পাওয়া গেল।চলুন পাঠক তাহলে জেনে নেই কার কত সম্পত্তি।

প্রিয়াঙ্কা চোপড়া: এই মুহূর্তে শুধু বলিউডে নয়, আন্তর্জাতিক ইন্ডাস্ট্রিতেও অন্যতম সফল নায়িকা বলাই যায় পিগি চপসকে। প্রায় আট কোটি ডলারের সম্পদ রয়েছে তাঁর জিম্মায়।

ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চন: নায়িকাদের মধ্যে লিডিং পজিশনে রাখতেই হবে বচ্চন-বউকে। তাঁর মোট সম্পত্তির পরিমাণ প্রায় তিন কোটি ৫০ লাখ ডলারের কাছাকাছি।

আমিশা প্যাটেল: বলিউডে খুব বেশিদিন টিকে থাকতে পারেননি। কিন্তু সম্পদের পরিমাণে অবলীলায় তাক লাগিয়ে দিতে পারেন আমিশা। তাঁর মোট সম্পত্তির পরিমাণ প্রায় তিন কোটি ডলার।

প্রীতি জিনতা: বি-টাউনের কিউট নায়িকার ফিল্মোগ্রাফিতে রয়েছে ‘কাল হো না হো, ‘কোয়ি মিল গ্যায়া, ‘বীর-জারা’র মতো হিট সিনেমা। আর তাঁর ভাণ্ডারে রয়েছে প্রায় তিন কোটি ডলারের সম্পত্তি।

দীপিকা পাড়ুকোন: বলিউড থেকে হলিউড- দুই ইন্ডাস্ট্রিতেই ঝাঁকিয়ে বসেছেন দীপিকা। তাঁর মোট সম্পত্তির পরিমাণ দুই কোটি ডলার।

অমৃতা রাও: বলিউডে তেমন সাফল্য পাননি। তবু ধনী নায়িকার তালিকায় নাম তুলেছেন অমৃতা। তাঁর মোট সম্পত্তির পরিমাণ প্রায় দুই কোটি মার্কিন ডলার।

কাজল: বলিউডের লম্বা রেসের ঘোড়া তিনি। তাই সম্পদের অঙ্কটাও বেশ লম্বা। প্রায় এক কোটি ৮০ লাখ ডলারের মালকিন কাজল।

ইলিয়ানা ডিক্রুজ: অল্প দিনেই বাজিমাৎ করেছেন বরফি-গার্ল। বি-টাউনে পা দিয়ে মাত্র চার বছরেই প্রায় এক কোটি ৪০ লাখ ডলারের মালকিন হয়েছেন ইলিয়ানা।

কারিশ্মা কাপূর: এক সময় ‘রাজা হিন্দুস্তানী, ‘আনারি, ‘দিল তো পাগল হ্যায়’-এর মতো ছবি দিয়ে পর্দা কাঁপিয়েছিলেন তিনি। এখন অভিনয় থেকে অবসর নিলেও ধনী নায়িকাদের তালিকা থেকে কোনও মতেই বাদ দেয়া যাবে না কারিশ্মাকে। কারণ তাঁর সম্পত্তির পরিমাণ প্রায় এক কোটি ২০ লাখ ডলার।

মল্লিকা শেরাওয়াত: বলিউডের বোল্ড বিউটি মল্লিকাও প্রায় এক কোটি মার্কিন ডলারের মালকিন।