বাড়ি নয় হাসপাতাল বানিয়ে জনসেবা করবঃ ইলিয়াস কাঞ্চন

নব্বই দশকের জনপ্রিয় চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন। এখন অভিনয়ে কম দেখা গেলেও ব্যস্ত রয়েছেন সমাজ সেবামূলক কাজে। এ বছর সমাজ সেবায় বিশেষ অবদান রাখার জন্য পেয়েছেন একুশে পদক। তার গড়া নিরাপদ সড়ক চাই আন্দোলন এখন দেশের প্রতিটি প্রান্তে মানুষকে সচেতন করে যাচ্ছে। গুনি এই অভিনেতা এবার হাসপাতাল বানাচ্ছেন।
আশুলিয়ায় নিজের জমিতে বাড়ি না বানিয়ে হাসপাতাল বানানোর ঘোষণা দিয়েছেন ইলিয়াস কাঞ্চন। যেখানে মানুষকে সেবা দেয়া হবে। এরই মধ্যে হাসপাতাল নির্মাণের প্রক্রিয়া শুরু হয়ে গেছে বলে জানান তিনি।
ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, আশুলিয়াতে হাসপাতাল করতে যাচ্ছি। আমার একটি মাত্র জমি, সেখানে আমি হাসপাতাল করবো। আমার যা আছে তাই দিয়েই হাসপাতালের কাজ শুরু হয়েছে। এর মধ্যেই ৬ তলার প্ল্যান পাশ হয়েছে। অনেক সহযোগিতা করেছেন ইঞ্জিনিয়ার স্বপন ভাই। আমি আমার স্বপ্ন পূরণ করে চলেছি। যতদিন বেঁচে থাকবো মানুষের সেবা করে যাবো। এটাই আমার স্বপ্ন ও কাজ।
১৯৭৭ সালে বসুন্ধরা চলচ্চিত্রের মাধ্যমে চলচ্চিত্রে অভিনয় শুরু করেন তিনি। বেদের মেয়ে জোছনা ছবিতে তিনি নায়কের ভূমিকায় অভিনয় করেন যা এখন পর্যন্ত বাংলাদেশের সর্বাধিক ব্যবসাসফল ও জনপ্রিয় চলচ্চিত্র হিসেবে স্বীকৃত। কাঞ্চন ৩০০টিও বেশি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন। তিনি একাধিকবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ও বাচসাস পুরস্কার অর্জন করেন।

Comments

comments

Leave A Reply

Your email address will not be published.