ব্রেকিংঃ ম্যাচ হেরে বাংলাদেশি দর্শকদের মারধর প্রচণ্ড কষ্ট নিয়ে যা বললেন টাইগার ভক্ত শোয়েব (ভিডিও)

বহু আলোচনা-সমালোচনার ম্যাচে দাগ রয়ে গেলো আরও একটি। শুক্রবার শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে জয়ের পর গ্যালারিতে হামলার শিকার হলেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের আইকনিক সাপোর্টার শোয়েব আলী বুখারি।

হারের পর শ্রীলঙ্কান সমর্থকরা তার ওপর হামলা করেন বলে জানান শোয়েব। ম্যাচের শেষ ওভারে মাহমুদুল্লাহর বীরোচিত ব্যাটিংয়ে জয় পায় বাংলাদেশ। ঘরের ফাইনাল খেলার স্বপ্ন ভেঙে যায় শ্রীলঙ্কার। সেই দুঃখটাই হয়তো সইতে পারেনি তারা। হামলা করে বসেন শোয়েবের ওপর।

বিগত কয়েক বছর ধরে বাংলাদেশ ক্রিকেটের পরিচিত মুখ শোয়েব। বাঘের সাজে গ্যালারিতে দেখা যায় তাকে। ক্রিকেটের প্রতি ভালোবাসা ও উন্মাদনার কারণে দেশে-বিদেশে পরিচিত মুখ তিনি।

নিদাহাস ট্রফিতে বাংলাদেশকে সমর্থন যোগাতে শ্রীলঙ্কায় পাড়ি জামান শোয়েব। বাংলাদেশের ফাইনাল নিশ্চিত করা ম্যাচ শেষে শোয়েব নিজেই জানান তার উপর হামলার কথা। তার দাবি, মাঠে উপস্থিত দায়িত্ব পালনরত পুলিশ সদস্যদের সামনেই হামলার শিকার হয়েছেন তিনি।

শোয়েবের বর্ণনামতে, হামলার পর নিরাপত্তার জন্য দৌড়ে কর্তব্যরত পুলিশ সদস্যদের কাছে যান। এ সময়ও তাকে ধাক্কা দিয়ে নিচে ফেলে দেন লঙ্কান সমর্থকরা। তার অভিযোগ, পুলিশ সদস্যরা দেখেও কিছুই বলেনি।

শোয়েব বলেন, ‘প্রশাসনের সামনে এভাবে হামলা করল, ওরা চেয়ে চেয়ে দেখল। তবে বাংলাদেশ ম্যাচ জিতেছে এটাই আমার কাছে বেশি।’

এসময় শোয়েবের পাশ থেকে বাংলাদেশের পতাকা মাথায় বাঁধা আরেকজন সমর্থক কাঁদোকাঁদো গলায় বলতে থাকেন, পুলিশের সামনেই আমাকে মেরেছে।

ম্যাচের শেষদিকে আম্পায়ারের ‘নো’ বল না দেওয়াকে কেন্দ্র করে দুই দলের খেলোয়াড়দের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। এরই জের ধরে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামের গ্যালারিতে। বাংলাদেশ ম্যাচ জিতে নিলে আরও উত্তেজিত হয়ে পড়েন স্বাগতিক দর্শকরা।

বাংলাদেশের সমর্থকদের লক্ষ্য করে তারা বিয়ার ছুঁড়ে মারেন বলেনও উঠে। এর আগে টুর্নামেন্টে বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কার মধ্যকার প্রথম ম্যাচেও বাংলাদেশের সমর্থকদের ওপর হামলার অভিযোগ উঠেছিল।

শ্রীলঙ্কায় হামলার শিকার শোয়েব আলী:

Comments

comments

Leave A Reply

Your email address will not be published.