রিয়াজ-তিনার বাগদান বার্ষিকী!

বিনোদন

বিয়ে বার্ষিকী বেশ ঘটা করেই পালন করেন বেশিরভাগ দম্পতি। কিন্তু বিয়ের আগের ছোট্ট আনুষ্ঠানিকতা বাগদানের দিনটিকেও যে আয়োজন করে পালন করা যায়, সেটি এবার দেখালেন রিয়াজ-তিনা দম্পতি। তাও আবার সেটা ১০ বছর পূর্তি উপলক্ষে!

২০০৭ সালের ২২ নভেম্বর চিত্রনায়ক রিয়াজ ও মডেল তিনার বাগদান হয়। এরপর ওই বছরের ১৮ ডিসেম্বর তারা বিয়ে বন্ধনে জড়ান।
এ বছর বাগদানের ১০ বছর পূর্তির দিনটিকে বিশেষভাবে উদযাপন করেছেন এই তারকা দম্পতি। গত ২২ নভেম্বর সন্ধ্যায় দু’জনে কেক কেটেছেন ঘটা করে। মেয়ে আমেরাকে নিয়ে ঘরোয়া পরিসরে দিনটা আনন্দেই কেটেছে তাদের।
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে নিজের অফিসিয়াল পেজে তিনবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারজয়ী অভিনেতা রিয়াজ লিখেছেন, ‘আজ থেকে ১০ বছর আগের এক বিকালে, একসঙ্গে পথচলার শুরু। আজও প্রতিটি দিন যেন এক নতুন গল্প, নতুন অনুভূতি। ধন্যবাদ তিনা।’

রিয়াজ-তিনার বাগদানের ছবি

বাগদান বার্ষিকীকে ঘিরে এই ভিন্ন আয়োজন প্রসঙ্গে শুক্রবার (২৪ নভেম্বর) সন্ধ্যায় রিয়াজ বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘বাগদানের মধ্য দিয়েই তিনা আর আমার একসঙ্গে পথচলার গল্পটা শুরু হয়। কিভাবে যেন এক দশক কেটে গেলো! বিয়েবার্ষিকী তো আমরা সবাই উদযাপন করি কিন্তু আমরা অনেকেই ভুলে যাই- বাগদানই বিয়ের প্রথম ধাপ। তাই বাগদানের ১০ বছর পূর্তিটাকে আলাদাভাবে উদযাপন করলাম।’
বিনোদন বিচিত্রা ফটোসুন্দরী বিজয়ী তিনা শোবিজে টুকটাক কাজ করেছেন। ২০০৭ সালের ১৮ ডিসেম্বর রিয়াজের ঘরে বউ হয়ে আসেন তিনি। ২০১৫ সালের ১ জুন তাদের সংসার আলো করেছে কন্যাসন্তান আমেরা। রিয়াজ ব্যবসার পাশাপাশি অভিনয়ের সঙ্গে জড়িয়ে থাকলেও তিনা এখন পুরোদমে সংসারী।

বাগদান দিবসের কেক