সরষের মধ্যেই ভূত !!! দুর্নীতির অভিযোগে দুদকের কর্মকর্তা বরখাস্ত!

প্রধান খবর বাংলাদেশ

আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের অভিযোগে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সহকারী পরিচালক আমিরুল ইসলামকে সাময়িক বরখাস্ত করেছে সংস্থাটি। আজ সোমবার আমিরুল ইসলামকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়। আমিরুল দুদকের রাজশাহী সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক ছিলেন।

দুদক সূত্র জানায়, আমিরুল ইসলাম তাঁর সম্পদ বিবরণীতে দেখিয়েছেন, তাঁর ব্যাংক হিসাবে কোনো অর্থ নেই। পরে দুদকের অনুসন্ধানে তাঁর ব্যাংক হিসাবে ১২ লাখ টাকা পাওয়া যায়।

এ ছাড়া দুদকের অনুসন্ধানে আরও দেখা গেছে, আমিরুল ইসলাম তাঁর স্ত্রীর নামে গাজীপুরের চান্দনা মৌজায় ১১ দশমিক ৫ শতাংশ জমি, টাঙ্গাইলের নাগরপুরে ১ একর ১৩ শতাংশ জমি ও গাজীপুরে আরও ৫ দশমিক ৫ শতাংশ জমি কিনেছেন। গাজীপুর ও টাঙ্গাইলে পাওয়া এসব জমির মোট দাম ১ কোটি ৭৫ লাখ টাকা। দুদকের প্রশ্নের পরিপ্রেক্ষিতে জমি কেনার অর্থের উৎস দেখাতে পারেননি আমিরুল। এ কারণে অনুসন্ধানের পর আজ তাঁকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

দুদকের মহাপরিচালক (প্রশাসন) মো. মুনীর চৌধুরী বলেন, ‘শুধু সাময়িক বরখাস্ত নয়। সাধারণ নাগরিকদের দুর্নীতির বিরুদ্ধে যেসব ব্যবস্থা নেওয়া হয়, এ ক্ষেত্রেও সেসব ব্যবস্থাই নেওয়া হবে।’